: প্রস্তাবিত

BDT 1,150,000

ঢাকা

Maruf Rabbi
  • 25,000 কিলোমিটার

Condition : Super Fresh Condition Manufacturer : Mazda Series : RX 8 Model : 2003 Registration : 2011 Engine : BEAMS 2000 Engine. Mileage: 26470 (Original Mileage) Serial : 12 Displacement : 1300...

BDT 2,300,000 মূল্য পরিবর্তনশীল

ঢাকা

Loshianzad Loshianzad
  • 26,000 কিলোমিটার

Mazda Rx8 Type S 2011 Series 2 - Sunroof - Auto Exe front bumper - Auto Exe strut bar - Auto Exe headlight eye lids - Auto Exe cold air induction box - RE Motorsport Oil catch can - Razo Mot...

BDT 1,250,000 মূল্য পরিবর্তনশীল

Dhaka

Fahad Kabir
  • 24,000 কিলোমিটার

This Red Mazda RX-8 type : E 2004 is exceptional value at just BDT1250000. The vehicle has a Automatic transmission system and has traveled 24000km to get to you. You won't find a better deal an...

BDT 1,600,000 মূল্য পরিবর্তনশীল

Bangladesh

Joy Shikder
  • 42,000 কিলোমিটার

Mazda has delivered quality for years and this vehicle is no exception. This Mazda RX-8 2009 has travelled a total of 42000km and features a Automatic transmission system as well as other great f...

BDT 2,300,000 মূল্য পরিবর্তনশীল

ঢাকা

Loshian Azad
  • 25,000 কিলোমিটার

Mazda Rx8 Type S 2011 Series 2 - Auto Exe front bumper - Auto Exe strut bar - Auto Exe headlight eye lids - Auto Exe cold air induction box - RE Motorsport Oil catch can - Razo Motorsport Gear kn...

ফলাফল হালনাগাদ করুন
বাংলাদেশে মাজদা আর এক্স-এইট বিক্রয়

বাংলাদেশে মাজদা আর এক্স-এইট বিক্রয়

২০০৩ সালে জাপানী গাড়ি নির্মাতা মাজদা  মটরস  কর্পোরেশন , মাজদা  আর এক্স-এইট নামক স্পোর্টস গাড়ি বাজারজাত করে। স্পোর্টস গাড়ির বাজারে মাজদা বেশ বিখ্যাত, আর এখন পর্যন্ত ১৯২,০০০ টি  স্পোর্টস  গাড়ি  নির্মান  করেছে । এটা মাজদা আর এক্স- ৭ এর জায়গায় বাজারজাত করা হয়। ২০০৩ থেকে ২০০এইট এর মধ্যে প্রথম প্রজন্ম মাজদা আর এক্স-এইট উৎপাদন হয়, আর ২০০৯ সাল থেকে এর দ্বিতীয় প্রজন্ম বাজারে আসে। পৃথিবীর বিভিন্ন বাজারে এই গাড়ির কিছু স্পেশাল এডিশন বিভিন্ন নামে বিক্রি হয় যেমন: ইভল্ভ , শিন্কা , নেমেসিস , পিজেড  আর  কুরো । এই গাড়িটা নিজের ছোটো জীবনে ৩৭টি  আন্তর্জাতিক  মোটর  অ্যাওয়ার্ড  জয় করে নিয়েছে। ২০১২ সালে এই স্পোর্টস গাড়িটি উৎপাদন বন্ধ হয়ে যায়, আর এখন মাজদা এর পরের  মডেলের  ওপর কাজ করছে।

মাজদা আর এক্স-এইট রিভিউ

মাজদা আর এক্স-এইট ইঞ্জিন স্পেসিফিকেশন

২০১১ সালের মাজদা আর এক্স – এইট ৩টি ট্রিমে উপলব্ধ: গ্রান্ড  টুরিং , আর৩ আর স্পোর্ট । সব ট্রিমে আছে ১.৩ লিটার রেনেসিস  ২ রোটারি  ইঞ্জিন । এই ইঞ্জিন আপনাকে দেয় ২৩২ হর্সপাওয়ার  এবং ১৫৯ নিউটন  মিটার  টর্ক। এছাড়া আরও পাচ্ছেন ৬ স্পিড  অটোমেটিক  বা ম্যানুয়াল  ট্রান্সমিশন

মাজদা  আর এক্স-এইট এর ডিসাইন

মাজদা  আর এক্স- এইট এর আছে অনন্য স্টাইল। হ্যালোজেন  ফগ লাইট কুয়াশা আর বৃষ্টিতে পথ দেখতে সাহায্য করে। উইন্ডশিল্ডের ইউভি  কাট  গ্লাস যাত্রীদেরকে সূর্যের ক্ষতিকর অতি বেগুনি রশ্মি থেকে রক্ষা করে। অটো অন/অফ সহ জিনন  হাই  ইনটেনসিটি  ডিসচার্জ  (এইচ আই ডি) লো বিম হেডলাইট গাড়ির স্পোর্টি চেহারাকে হাইলাইট করে। রিয়ার সীটটাকে ভাঁজ করে আপনি স্টোরেজের জায়গা তৈরী করে নিতে পারেন। আর এক্স- এইট এ আছে পলেন  ফিল্টার সহ অটোমেটিক এবং ম্যানুয়াল, দুইরকমেরই ক্লাইমেট কন্ট্রোল। ড্যাশবোর্ডএ ট্যাকোমিটার  হাউসিং এর ভেতরে আছে স্পীডোমিটার

মাজদা  আর এক্স-এইট এর সেফটি ফীচার্স

২০১১ সালের মাজদা  আর এক্স-এইট এর সাথে ছিল তখনকার অত্যাধুনিক সেফটি ফীচার্স. ফীচার্সগুলোর মধ্যে পরে এস আর এস ট্রাকশন কন্ট্রোল, এয়ারব্যাগ, ইলেকট্রনিক স্টাবিলিটি কন্ট্রোল, পাওয়ার লক, ক্রুজ কন্ট্রোল, ব্রেক অস্সিস্ট আর টায়ার প্রেসার মনিটর সহ ৪ চাকা এবিএস। মাজদা  আর এক্স-এইট এর অন্যতম ফীচার্স

  • বাংলাদেশে উপলব্ধ একমাত্র এক্সক্লুসিভ স্পোর্টস গাড়ি
  • শুধু মাজদা মটরস কর্পোরেশনই দেয় রেনেসিস রোটারি ইঞ্জিন
  • মাজদাই সেই প্রতিমাসংক্রান্ত পেছনের দিকে উঠে যাওয়া গাড়ির দরজা বাজারে নিয়ে আসে
  • এটার ৬ স্পীড শর্ত থ্রো শিফ্টার পৃথিবীর সবচেয়ে যথাযত
  • এটার আছে আরও অন্যতম ফীচার্স যেমন টাইমার সহ পেছনের জানালা ডিফগার, অটো ডিমিং পেছনে তাকানোর আয়না, ভ্যারিয়েবল ইন্টারমিতেন্ট আর উইন্ডশিল্ড ওয়াইপার সহ ইন গ্লাস এন্টেনা।

বাংলাদেশে মাজদা  আর এক্স-এইট এর উপলব্ধি ও মূল্য

মাজদা  মটরস কর্পোরেশন সাউথ ইস্ট এশিয়া তে এই গাড়ি বাজারজাত  করে না, আর বাংলাদেশে এই গাড়ির কোনো অফিসিয়াল আমদানিকারক নেই। কিছু কিছু সুপরিচিত গাড়ির ডিলার এই গাড়িটা অন-ডিমান্ড আমদানি করে দেয়। কারমুডিতে খুঁজে পাবেন ব্যবহৃত আর রিকন্ডিশন  করা মাজদা আর এক্স-এইট, যেগুলোর মূল্য নিচে দেয়া রইলো:

মাজদা  আর এক্স- এইট ২০০৩ মূল্য : ব্যবহৃত - ১৫,৪০,০০০ টাকা

মাজদা  আর এক্স- এইট ২০১০ মূল্য : ব্যবহৃত - ২৩,৭৫,০০০ থেকে ২৬,৭৫,০০০ টাকা

কেন কিনবেন মাজদা আর এক্স-এইট ?

এটার ডিসাইন অত্যন্ত ব্যবহারিক হওয়াতে, অন্যান্য স্পোর্টস গাড়ির চেয়ে এটার সুবিধা বেশি। বাজারে এটার প্রতিদ্বন্দ্বীদের মধ্যে আছে ভক্সওয়াগন  গল্ফ টিডিআই , নিসান ফেয়ারলেডি  আর হোন্ডা  ইনসাইট , যেগুলো বাংলাদেশের বাজারে পাওয়া যায় না। মাজদা আর এক্স-এইট খুব বেশি ফুয়েল এফিসিয়েন্ট না হলেও, সেটা সহজেই চোখের আড়াল করা যায়, কারণ এটার স্পোর্টস গাড়ি হিসেবে পার্ফর্মান্স চমৎকার! মাজদা আর এক্স - এইট  কিনতে পারেন কারণ এটি:

  • দারুন স্পোর্টস গাড়ি
  • অত্যন্ত সাশ্রয়ী
  • অন্দরে যথেষ্ট জায়গা
  • চমৎকার ড্রাইভিং অভিজ্ঞতা
  • খুব ভালো হ্যান্ডলিং